প্রচ্ছদ

শারদীয় দুর্গোৎসবে বিশ্বনাথে শফিক চৌধুরীর বস্ত্র বিতরণ

05 October 2019, 17:42

শুভ প্রতিদিন

আব্বাস হোসেন ইমরান, বিশ্বনাথ প্রতিনিধি শারদীয় দুর্গোৎসব উপলক্ষ্যে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও সিলেটের বিশ্বনাথে উপজেলার বিভিন্ন এলাকার সনাতন ধর্মালম্বীদের মাঝে ব্যক্তিগত উদ্যোগে বস্ত্র বিতরণ করেছেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় সাবেক এমপি আলহাজ্ব শফিকুর রহমান চৌধুরী। শনিবার সকালে উপজেলা সদরস্থ সওজের ডাকবাংলা প্রাঙ্গনে উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় বস্ত্র বিতরণ করা হয়। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘ধর্ম যার যার, আর উৎসব সবার’ তাই প্রতি বছরের ন্যায় এবারও উপজেলার সর্বস্তরের মানুষের সার্বিক সহযোগীতায় সুষ্ট, সুন্দর ও শান্তিপূর্ণভাবে সনাতন ধর্মালম্বীদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় অনুষ্ঠান শারদীয় দুর্গোৎসব সম্পন্ন করার জন্য সরকারের পক্ষ থেকে সকল প্রকারের প্রস্তুতি গ্রহন করা হয়েছে। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান’র কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র নেতৃত্বে সবভাবে সকল ধর্মের মানুষের কল্যানে কাজ করে যাচ্ছেন সরকার। আওয়ামী লীগ রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় থাকলে সকল ধর্মের মানুষ নিজেদের অধিকার নিয়েই দেশে শান্তিপূর্ণ ও নিরাপদে বসবাস করতে পারেন। উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অজিত কুমার পালের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক জয়ন্ত কুমার দাশ ও যুগ্ম সম্পাদক বিভাংশু গুন বিভুর যৌথ পরিচালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য এস এম নুনু মিয়া, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব পংকি খান, যুগ্ম সম্পাদক শাহ ফয়েজ আহমদ সেবুল, মকদ্দছ আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক আবুল কালাম জুয়েল, রামসুন্দর সরকারি অগ্রগামী উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক প্রধান শিক্ষক নবেন্দু জ্যোতি দে, বিশ্বনাথ সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মহব্বত আলী জাহান, উপজেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সমরেন্দ্র বৈদ্য সমর, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের কার্যনির্বাহী সদস্য নিশি কান্ত পাল, উপজেলা জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদের সভাপতি শংকর দাশ শংকু। শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের যুগ্ম সম্পাদক কাজল মালাকার। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি হাজী ইরন মিয়া, ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক আবদুল মতিন, প্রচার সম্পাদক নিখিল পাল, বন ও পরিবেশ সম্পাদক রুনু কান্ত দে, কার্যনির্বাহী সদস্য আনোয়ার আলী, আওয়ামী লীগ নেতা আবদুল মোমিন, আনহার মিয়া, উপজেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি হাজী আমির আলী, উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সহ সভাপতি করুণা বৈদ্য, কোষাধ্যক্ষ কানু রঞ্জন দে, দপ্তর সম্পাদক অজয় দেব, প্রচার সম্পাদক প্রনঞ্জয় বৈদ্য অপু, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক শুভরাজ চন্দ, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান সংরক্ষন সম্পাদক নির্মল সরকার, সহ পূজা সম্পাদক সুমন দেব, কার্যনির্বাহী সদস্য রঞ্জু মালাকার, অকিল বৈদ্য, যুবলীগ নেতা দবির মিয়া, সঞ্চিত আচার্য্য, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা নিজাম উদ্দিন, মহানগর ছাত্রলীগ নেতা সাফায়েত খান, শরীফ উদ্দিন সৌরভ, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শীতল বৈদ্য, সাংগঠনিক সম্পাদক জুবায়ের আহমদ জয়, উপজেলা বঙ্গবন্ধু শিশু-কিশোর মেলার সভাপতি শেখ ফজর রহমান, ছাত্রলীগ নেতা সিরাজুল ইসলাম রুকন, কবির আহমদ, মিয়াদ আহমদ, জাকির হোসেন, আশরাফ উদ্দিন, দুদু মিয়া, শিপন আহমদ, কয়েছ মিয়া, রাশেদ আহমদ, সামি, ইমন আহমদ প্রমুখসহ আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠন এবং উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদ ও বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার নেতৃবৃন্দ।